‘হতাশার ওজন’ কমানোর ম্যাচ

শেষের পাতা

ইশতিয়াক পারভেজ, সিলেট থেকে | ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, রোববার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:০২
সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম আজ রঙিন হবে লাল-সবুজের রংয়ে। দেশের নয়নাভিরাম এ স্টেডিয়ামে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামবে বাংলাদেশ জাতীয় দল। তবে এ ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে লড়াইটি মান রক্ষার। তাই অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদও দৃঢ় প্রত্যয়ী শেষ ম্যাচ জিতে হতাশার ওজন কমাতে। গতকাল ম্যাচ পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে মাহমুদুল্লাহ বলেন, ‘টেস্ট সিরিজ ও ওয়ানডে সিরিজে যেখানে আমরা আশাবাদী ছিলাম, আশানুরূপ ফল পাইনি আমরা। আর প্রথম ম্যাচটা ব্যাটসম্যানরা ভালো পারফর্ম করেছে, কিন্তু বোলাররা হয়তো ঠিকমতো এক্সিকিউট করতে পারেনি।
কিন্তু এখনো একটা ম্যাচ আছে, আমরা সেটার জন্য খেলবো। ওটাই আমরা চিন্তা করছি। অনুপ্রাণিত হওয়ার চেষ্টা করছি যেন আমরা সিরিজটা জিততে না পারলেও, অন্তত ড্র করতে পারি এবং এটাই লক্ষ্য। যেহেতু প্রত্যেকটা ম্যাচই আমরা খেলেছি জেতার জন্য। চেষ্টা থাকবে এটাই, যেন আমরা ভালো একটা রেজাল্ট করতে পারি।’ আজ বিকাল ৫টায় মুখোমুখি হবে দুই দল। আর এ ম্যাচের মধ্য দিয়েই শেষ হবে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এক মাসেরও বেশি সময় চলা ক্রিকেট লড়াই। এ ম্যাচ ঘিরে সিলেটে বইছে আনন্দের বন্যা। মাত্র ৫ ঘণ্টাতেই শেষ হয়ে গেছে অনলাইনের সব টিকিট। সরাসরি স্টেডিয়ামের বুথ থেকেও টিকিট পেতে চলছে লড়াই।
সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে নিজেদের ইতিহাসের সর্বোচ্চ ১৯৩/৫ রান করেও জিততে পারেনি বাংলাদেশ। কিন্তু লঙ্কানরা ঠিকই রেকর্ড রান তাড়া করে জয় তুলে নিয়েছে। যদিও লঙ্কানদের এ জয় ছিল খর্ব শক্তির টাইগারদের বিপক্ষে। কারণ ইনজুরির কারণে দলে ছিলেন না নিয়মিত অধিনায়ক সাকিব আল হাসান ও দেশসেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। শেষ ম্যাচেও তিনি খেলতে পারছে না সাকিব। সাকিবের ধাক্কা সামলে ওঠার আগেই ইনজুরিতে পড়েছিলেন তামিম ইকবাল। দারুণ ব্যাটিং করলেও বোলারদের চরম ব্যর্থতায় জয় হয়েছে হাতছাড়া। তবে আজ সাকিবকে না পেলেও দলে ফিরছেন তামিম ইকবাল। তাই শেষ ম্যাচে টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারে প্রথম ফিফটি হাঁকানো সৌম্য সরকার পাচ্ছেন নির্ভরতার সঙ্গী। তামিমের অবস্থা নিয়ে মাহমুদুল্লাহ বলেন, ‘তামিমের অবস্থা এখন অনেক ভালো। আশা করি, সে ফিট হয়ে যাবে। সে আগামীকাল খেলবে ইনশাআল্লাহ্‌?।’
তামিম দলে ফেরাতে আজ বাদ পড়বেন জাকির হাসান। অভিষেক ম্যাচে তিনি সৌম্যের সঙ্গে ওপেন করতে নেমে ৯ বলে করেছিলেন ১০ রান। এছাড়াও আজ দলে দেখা যাবে আরো দুটি পরিবর্তন। ব্যর্থ তরুণ পেসার সাইফুদ্দিনের পরিবর্তে অভিষেক হতে পারে সিলেটের ঘরের ছেলে আবু জায়েদ চৌধুরী রাহীর। শেষ বিপিএলে বল হাতে দারুণ ছিলেন পেসারদের মধ্যে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি। এছাড়াও আরেক তরুণ আফিফ হোসেনের উপর আস্থা আজ নাও রাখতে পারে দল। তার পরিবর্তে অভিষেক হতে পারে আরেক তরুণ ও বিপিএলের চমক লাগানো পারফরমার অফস্পিনার মেহেদী হাসান। তবে নাজমুল ইসলাম অপু ও আরিফুল হক থাকবেন দলে। এ ম্যাচে খেলার সম্ভাবনা কম থাকলেও জাকির ও আফিফের উপর এত দ্রুত আস্থা হারাতে চান না অধিনায়ক। তিনি বলেন, ‘প্রথম কথা হচ্ছে যে, আপনি যে দুইজনের কথা বললেন, আন্তর্জাতিক স্টেজে এসে পারফরম্যান্স করা মোটেই সহজ ব্যাপার নয়। অবশ্যই তাদের সক্ষমতা আছে। ইনশাআল্লাহ অনেক বছর ওদের ক্রিকেট খেলার এবং বাংলাদেশকে দেয়ার সুযোগ আছে।’
অন্যদিকে শুধু জয় দিয়ে মান রক্ষাই নয়। সিলেট স্টেডিয়ামে নিজেদের প্রথম ম্যাচটিতে জয় দিয়েও স্মরণীয় করে রাখতে চান টাইগার অধিনায়ক। তবে তার জন্য উইকেট চিন্তাও এসে ভিড় করেছে তার মাথায়। তিনি বলেন, ‘আসলে এটা নির্ভর করছে উইকেট আমরা কেমন পাচ্ছি। উইকেটের কন্ডিশনটা আমরা বিবেচনা করবো। তার ওপর টসটা গুরুত্বপূর্ণ। আর টি-টোয়েন্টিতে আমার মনে হয়, প্রত্যেকটি বিভাগেই আপনাকে ভালো করতে হবে। আপনি আগে ব্যাটিং করেন বা বোলিং করেন। আপনি যদি আপনার স্কিল এক্সিকিউট করতে পারেন, তাহলে এটাই যথেষ্ট। কে আগে ব্যাটিং করলো বা বোলিং করলো তাতে কিছু আসে যায় না। কন্ডিশন যদি একটু ভিন্ন হয় তাহলে টসের ইস্যুতে বিবেচনার বিষয় থাকে।’

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

৪ মিনিটে মিশরের জালে আরো ২ গোল রাশিয়ার

প্রচারণায় কেন্দ্রীয় নেতারা উত্তেজনা বাড়ছে

গ্যালারিতে অন্য আকর্ষণ

উছিলা বিশ্বকাপ উদ্দেশ্য ভিন্ন

নারী নির্যাতন মামলায় কম সাজার নেপথ্যে

খালেদার চিকিৎসা ও মুক্তির দাবিতে বিএনপির বিক্ষোভ কাল

বন্যার্ত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান সুলতান মনসুরের

রোহিঙ্গা নেতাকে গলা কেটে হত্যা

বিশুদ্ধ পানি স্যানিটেশন ও খাদ্য সংকট চরমে

জলবায়ু পরিবর্তন ট্রাস্ট ফান্ডে বরাদ্দযোগ্য অর্থ নেই

খুলনায় আর্জেন্টিনা সমর্থকদের ওপর হামলা, নোয়াখালীতে সংঘর্ষ

নোয়াখালীতে প্রবাসী খুন, ৬ মাসেও গ্রেপ্তার হয়নি আসামি

ফাঁকা ঢাকায় ছিনতাই আতঙ্ক

ওয়ান ইলেভেনের কুশীলবদের নিয়ে বিএনপি এবার সক্রিয়

সাগর-রুনি হত্যা রহস্য উদঘাটন কত দূর?

সাবেক ইসরাইলি মন্ত্রী ইরানের গুপ্তচর?