নওগাঁয় পুলিশি হেফাজতে যুবকের মৃত্যু

বাংলারজমিন

নওগাঁ প্রতিনিধি | ২১ এপ্রিল ২০১৯, রোববার
নওগাঁর মান্দায় বাবুল হোসেন ওরফে বাবু মোল্লা (৩০) নামে এক যুবকের অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। গতকাল ভোর সাড়ে ৪টার দিকে মান্দা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তিনি মৃত্যুবরণ করেন। মৃত বাবু উপজেলার ভারশোঁ ইউনিয়নের চেরাগপুর গ্রামের মোজাম্মেল হকের ছেলে ও এক সন্তানের জনক। নিহত বাবুর লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নওগাঁ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। মান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ মোজাফফর হোসেন জানান, নারী নির্যাতন মামলার গ্রেফতারী পরোয়ানাভূক্ত আসামি উপজেলার পরাণপুর ইউনিয়নের বানিসর গ্রামের মৃত আবদুল জলিলের বিধবা স্ত্রী পারভীন বিবিকে (৪৫) ধরতে গত শুক্রবার গভীর রাতে অভিযান চালায় পুলিশ। এসময় পারভীন বিবির ঘরে বাবু মোল্লা অবস্থান করছিল। পুলিশ পারভীনকে গ্রেফতারসহ বাবুকেও হেফাজতে নিয়ে থানায় ফিরছিল। পথে বাবু অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে মান্দা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসা চলার কিছু সময়ের মধ্যেই বাবুর মৃত্যু ঘটে। আসামি পারভীন বিবি জানান, মোবাইলফোনের মাধ্যমে বাবুর সঙ্গে আমার পরিচয় ঘটে। সেই সুত্র ধরে গত শুক্রবার সন্ধ্যায় মুঠোফোনে যোগাযোগ করে রাতে একইসঙ্গে থাকার কথা বললে বাবু আমার বাড়িতে আসে। রাতে একইঘরে অবস্থানের সময় পুলিশ আমাদের দু’জনকে আটক করে। তিনি আরও বলেন, পুলিশ আমাদের নিয়ে থানায় ফেরার পথে বাবু অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানেই বাবুর মৃত্যু হয় বলে উল্লেখ করেন তিনি। মান্দা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক বিজয় কুমার জানান, ভোররাতে বাবুকে নিয়ে পুলিশ হাসপাতালে আসেন। এ সময় বাবু জানান, রাতে তিনি দুইটি যৌন উত্তেজক ট্যাবলেট খেয়েছেন এবং অসুস্থবোধ করছেন। তার ভাষ্য অনুযায়ী চিকিৎসা শুরু করা হয়। এর কিছু সময়ের মধ্যে বাবু জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন ও মারা যান। মান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ মোজাফফর হোসেন  আরো জানান, নিহত বাবুর লাশ ময়না তদন্তের জন্য নওগাঁ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের করা হয়েছে বলেও জানান ওসি মোজাফফর হোসেন।  



এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

রাঙ্গামাটিতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে সেনাসদস্য নিহত

ঈদে সড়কেই প্রাণ গেল ২২৪ জনের

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন আদৌ শুরু হচ্ছে কি?

কুমিল্লায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৮

এখনো উচ্চ ঝুঁকি ২৪ ঘণ্টায় ১৭০৬ রোগী ভর্তি

পার্বত্য চট্টগ্রাম ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ

ডেঙ্গুর প্রজননস্থলে কতটা যেতে পারছেন মশক নিধন কর্মীরা?

বৈঠকের পর চামড়া বিক্রিতে সম্মত আড়তদাররা

জনগণকে সতর্ক পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকার পরামর্শ

ছিনতাইকারীর হাতে খুন হন কলেজছাত্র রাব্বী

শিক্ষিকাকে গণধর্ষণের পর হত্যা

শহিদুল আলমের মামলা স্থগিতই থাকবে

ডেঙ্গুর ভয়ে স্কুলে যাওয়া বন্ধ তবুও...

রক্ত পরীক্ষার রিপোর্ট নিয়ে ঢামেকে সংঘর্ষ, আহত ২৫

টার্গেট রাজনৈতিক সম্পর্ক দৃঢ়করণ

ইউজিসি প্রফেসর হলেন ডা. এবিএম আব্দুল্লাহ