স্ম র ণ

মাহফুজ উল্লাহ

ষোলো আনা

ষোলো আনা ডেস্ক | ৩ মে ২০১৯, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ৬:৫৯
স্পষ্টভাষী মাহফুজ উল্লাহর জন্ম ১৯৫০ সালে নোয়াখালীতে। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পদার্থবিদ্যা ও সাংবাদিকতায় স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করেন। তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তান ছাত্র ইউনিয়নের কর্মী হিসেবে অংশ নিয়েছিলেন ঊনসত্তরের ১১ দফা আন্দোলনে। আইয়ুব খানের শাসনামলে তাকে ঢাকা কলেজ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছিল। তিনি পরে ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

ছাত্রাবস্থাতেই তিনি সাংবাদিকতা পেশার সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন। সাপ্তাহিক বিচিত্রার জন্মলগ্ন (১৯৭২) থেকে জড়িত ছিলেন। এ ছাড়াও কাজ করেছেন বিভিন্ন বাংলা ও ইংরেজি দৈনিকে। বাংলাদেশে তিনিই পরিবেশ সাংবাদিকতার সূচনা করেন।
তিনি চীনে বিশেষজ্ঞ হিসেবে, কলকাতায় বাংলাদেশ উপ-দূতাবাসে দায়িত্ব পালন করেন। এ ছাড়াও তিনি বিভিন্ন বিষয়ে বাংলা ও ইংরেজি ভাষায় পঞ্চাশের অধিক বই লিখেছেন।

মাহফুজ উল্লাহ মৃত্যুবরণ করেন গত ২৭শে এপ্রিল। ব্যাংককের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৯ বছর। সাংবাদিকতার পাশাপাশি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগে খণ্ডকালীন শিক্ষকতা করেছেন তিনি। তিনি ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়ে সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিভাগে শিক্ষকতায় যুক্ত ছিলেন।


এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

‘এটা একটা খারাপ লাগার ব্যাপার’

যানবাহনের অসুস্থ প্রতিযোগিতা বন্ধ করতে হবে

ক্রিকেটারদের ধর্মঘট ষড়যন্ত্রের অংশ

যেভাবে কোটিপতি ‘পলিথিন তবারক’

কীভাবে ভিআইপি লাউঞ্জ ব্যবহার করতেন সম্রাট?

ক্রিকেটারদের আন্দোলনে ফিকা’র সমর্থন

দুদকের আট কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অনুসন্ধান শুরু

ইডেন টেস্টে উপস্থিত থাকবেন শেখ হাসিনা

‘আমার মনে হয় বোর্ডের সবাই ব্যর্থ’

বিশ্বনাথে পংকি খান ও ফারুককে নিয়ে জল্পনা

পদ্মা সেতুর ১৫তম স্প্যান বসলো

ব্রেক্সিট চুক্তি পাস করাতে জনসনের শেষ প্রচেষ্টা

এনু-রূপণের ৩৫ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ

মাদক-দুর্নীতি-চাঁদাবাজি ও অনুপ্রবেশকারীদের বিষয়ে জিরো টলারেন্স: যুবলীগ

সাদাতের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

বায়তুল মোকাররমে হেফাজতের বিক্ষোভ