বেশির ভাগ বিদেশী শ্রমিক সিঙ্গাপুরে কর্মপরিবেশ নিয়ে সন্তুষ্ট

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১০ জুন ২০১৯, সোমবার
সিঙ্গাপুরে কর্মপরিবেশ নিয়ে সন্তুষ্ট বিদেশী শ্রমিকরা। দেশটির মানবসম্পদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষে চালানো এক নতুন জরিপে এ কথা বলা হয়েছে। বিদেশী ওই সব শ্রমিক তাদের বন্ধু ও আত্মীয়দেরকে সেখানে কাজে যাওয়ার সুপারিশ করবেন বলে বলা হয়েছে এতে। এ খবর দিয়েছে সিঙ্গাপুরের অনলাইন দ্য স্ট্রেইটস টাইমস।

রোববার প্রকাশ করা হয়েছে ওই জরিপের ফল। এতে অংশ নেয়া ২৫০০ ওয়ার্ক পারমিট ও ৫০০ এস পাস হোল্ডারের বেশির ভাগই ভাল বেতন, উন্নত বসবাসের সুবিধা, নিরাপত্তার কথা বলেছেন। মন্ত্রণালয়ের পক্ষে গত বছর এই জরিপ পরিচালনা করে ব্লাকবক্স রিচার্স। জরিপে সার্বিক বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে, শতকরা ৮৬.৩ ভাগ ওয়ার্ক পাস হোল্ডার এবং ৮৭.৫ ভাগ এস পাস হোল্ডার বলেছেন, সিঙ্গাপুরে কাজ নিয়ে তারা সন্তুষ্ট।
২০১৪ সালেও একই রকম ফল বেরিয়ে এসেছিল। তাতে সন্তোষ প্রকাশ করেছিলেন শতকরা ৮৭.৭ ভাগ ওয়ার্ক পাস হোল্ডার এবং শতকরা ৯০.৭ ভাগ এস পাস হোল্ডার।

এবার শতকরা ৮৪ ভাগ ওয়ার্ক পারমিট হোল্ডার এবং শতকরা ৯১ ভাগ এস পাস হোল্ডার বলেছেন, তারা কর্মক্ষেত্র হিসেবে সিঙ্গাপুরের সুপারিশ করবেন। ২০১৪ সালে এই হার ছিল যথাক্রমে শতকরা ৮৫.৭ ভাগ ও ৯৩.৪ ভাগ। এর শীর্ষ ৫টি কারণ হলো ভাল বেতন, নিরাপদ ও শঙ্কামুক্ত দেশ, জীবনযাপনের মান উন্নত, কর্মক্ষেত্রের পরিবেশ ভাল ও ভাল সম্ভাবনা।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

anok

২০১৯-০৬-১০ ০৫:২৩:৩২

vai. aponi singapore giye nije dekhe tarpor news koren.

আপনার মতামত দিন

বিশ্লেষক হিসেবে প্রতিবন্ধী শিশুদের খুঁজছে বৃটিশ গুপ্তচর সংস্থা

পর্নো ব্যবসা এত বিপুল হয়ে উঠলো কীভাবে : পর্ব ১

‘সেগুলোতে কাজ করার আগ্রহ পাই না’

পদ হারালেন ওমর ফারুক

১০ বছর আমার চেহারা ভালো ছিলো এখন খারাপ হয়েছে: ওমর ফারুক চৌধুরী

যুবলীগের প্রস্তুতি কমিটি গঠন

সিঙ্গাপুরে রাজার হালে ক্যাসিনো ডন সাঈদ

মোহাম্মদপুরের সুলতানের পতন

ঢাবি অ্যালামনাই এসোসিয়েশনে কেন যেতেন জি কে শামীম

সম্রাটের অস্ত্র ভাণ্ডারের খোঁজ মিলেছে

পাক-ভারত সীমান্তে গুলির লড়াই

মেননের বক্তব্যে তোলপাড়

ঢাবিতে ফের ছাত্রদলের ওপর হামলা

খালেদা জিয়াকে দেখতে যাবেন ঐক্যফ্রন্ট নেতারা

মন্ত্রী হলে কি এ কথা বলতেন?

অবৈধ উপায়ে নির্বাচনে জয়ীদের কোনো বৈধতা থাকে না