নোয়াখালীর গণপরিবহনে নৈরাজ্য

ফেরার পথেও ভাড়া আদায় হচ্ছে দ্বিগুণ

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, নোয়াখালী থেকে | ১২ জুন ২০১৯, বুধবার
পবিত্র ঈদুল ফিতরের ছুটি শেষে নোয়াখালী থেকে কর্মস্থলে ফেরার পথে পরিবহন শ্রমিকরা যাত্রীদের কাছ থেকে আদায় করছে দ্বিগুণ ভাড়া। এ নিয়ে যাত্রীদের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। পর্যাপ্ত পরিবহন সুবিধা না পেয়ে চরম ভোগান্তির শিকারও হচ্ছেন তারা। জেলায় ঈদ যাতায়াতে এই লাগামহীন বাস ও গণপরিবহনে ভাড়া বৃদ্ধিতে চরম বিড়ম্বনায় পড়েছেন ঢাকা-চট্টগ্রাম সহ জেলার বাইরে কর্মরত বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ। তারা ভাড়া বৃদ্ধি রোধে পরিবহন আইনের দাবি করেছেন। তবে বাস মালিক নেতাদের দাবি- বাস ভাড়া কিছুটা বৃদ্ধি করা হলেও যাত্রীদের যাতায়াতের সুবিধায় অন্যবারের তুলনায় চলাচল করছে পর্যাপ্ত বাস সার্ভিস। ছাড়া যাওয়ার পথে পর্যাপ্ত যাত্রী হলেও আসার পথে যাত্রীশূন্য গাড়ি নিয়ে ফিরতে হয়। অন্যদিকে গণপরিবহনে কয়েকটি চক্রের চাঁদাবাজিতে যানবাহনের চালক, মালিকরা অনেকটা অসহায় হয়ে বাড়তি ভাড়া আদায় করছেন বলেও দাবি পরিবহন মালিকদের। জেলার মহাসড়কে সড়ক ক্লিয়ার ফি, টার্মিনাল সিরিয়াল, পার্কিং ফির নামে বেপরোয়া চাঁদাবাজি যেন নিয়মে পরিণত হয়েছে। মঙ্গলবার বিকালে জেলার সর্ববৃহৎ বাস টার্মিনাল সোনাপুর বাস স্ট্যান্ডে হিমাচল এবং লাল সবুজ পরিবহনে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান চালিয়ে জরিমানা করা হয়েছে। নোয়াখালী-ঢাকা যাতায়াতে হিমাচল, লাল-সবুজ ও একুশে এক্সপ্রেস প্রতি জনের বাস ভাড়া ৩৮০ টাকার স্থলে ৫শ’ থেকে ৭শ’ টাকা আদায় করছে। নোয়াখালী-চট্টগ্রামগামী বাঁধন, রেসালাহ্‌, শাহী ও জোনাকী পরিবহন ২০০ টাকার পরিবর্তে ৩০০ থেকে ৩৮০ টাকা ভাড়া আদায় করছে। উপকূলে নোয়াখালী থেকে কুমিল্লার নির্ধারিত ভাড়া ১২০ টাকার স্থলে নেয়া হচ্ছে ১৮০ টাকা। বসুরহাট টু ঢাকা রুটে ড্রীম লাইন পরিবহন ৩০০ টাকার ভাড়া ৩৭০ টাকা আদায় করছে অন্যদিকে বসুরহাট টু চট্টগ্রাম রুটে বসুরহাট এক্সপ্রেসে ১৮০ টাকার ভাড়া ২৫০ টাকা আদায় করছে। এছাড়া জেলার সোনাপুর বাসস্ট্যান্ড থেকে ফেনীগামী সুগন্ধা সুপার সার্ভিস, লক্ষ্মীপুরগামী আনন্দ পরিবহন, রামগঞ্জগামী জননী পরিবহন, চেয়ারম্যান ঘাটগামী সুবর্ণ সুপার সার্ভিস, রামগতিগামী সুবর্ণ সুপার সার্ভিস যাত্রীদের কাছ থেকে দ্বিগুণ ভাড়া আদায় করছে। শুধু বাস নয়, সিএনজিচালিত, ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাসহ ছোট পরিবহনগুলোতেও দ্বিগুণ ভাড়া নেয়া হচ্ছে। ঢাকাগামী বাস চালক ড. আনিসুর রহমান জাহাঙ্গীর বলেন, সোনাপুর থেকে শুরু করে মাইজদী নতুন বাসস্ট্যান্ড, বেগমগঞ্জের চৌরাস্তা, সোনাইমুড়ি, কুমিল্লার একাধিক জায়গায় চাঁদা দিতে হয়। তাই ভাড়া বাড়িয়ে নিচ্ছি। সোনাপুর থেকে মাইজদীগামী সিএনজি চালিত অটোরিকশা চালক এমরান ও মোজ্জামেল হোসেন বলেন, প্রতি যাত্রীর কাছ থেকে ১০ টাকার পরিবর্তে ২০ টাকা নিচ্ছি। আগে শ্রমিক সংগঠন, মালিক সমিতি, শ্রমিক কল্যাণ ফান্ড, পৌরসভাসহ বিভিন্ন চাঁদা বাবদ ৮০ টাকা দিতে হতো। এখন ঈদকে কেন্দ্র করে সেটা দ্বিগুণ হয়েছে। ফলে বাড়তি বাড়া না নিলে নিজের খরচ তোলা সম্ভব হবে না। নোয়াখালী জেলা যুবলীগের সাবেক নেতা রেদোয়ানুল কবির ক্ষোভ প্রকাশ করে তার ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে বলেন, গাড়িতে চাঁদা আদায় করে আজ অনেকে কোটিপতি। অসাধুসহ মালিকরা অনেক অনিয়ম করে সরকার, যাত্রীদের ফাঁকি দিচ্ছেন। ভাড়া কমাতে হলে চাঁদাবাজি বন্ধ করতে হবে। তাহলে মালিকরা দুইশ’ টাকায় ঢাকায় যাত্রী সেবা দিতে পারবে। নোয়াখালীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. আবু ইউসূফ মানবজমিনকে বলেন, ঈদকে পুঁজি করে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়কারী পরিবহন-মালিকদের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এরই মধ্যে ভ্রাম্যমাণ আদালত একাধিক পরিবহন ও ব্যক্তিকে জরিমানা করেছে। চাঁদাবাজির ব্যাপারে সুনিদিষ্ট অভিযোগ পেলেই সাথে সাথে ব্যবস্থা নেয়া হবে। জেলার ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রোকনুজ্জামান খান জানান, জাতীয় ভোক্ত অধিকার সংরক্ষণ আইনের ধারা অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের দায়ে ঢাকাগামী পরিবহন একুশে এক্সপ্রেসকে ৫ হাজার টাকা, হিমাচল পরিবহনকে ৫ হাজার, জননী পরিবহন কে ৫ হাজার টাকা, মোহনা পরিবহন ৫ হাজার টাকা ও চট্টগ্রামগামী বাস সার্ভিস জোনাকী পরিবহনের দুইটি বাসকে ৫ হাজার ৫শ’ টাকা বাধন পরিবহনকে ২ হাজার টাকা, শাহী পরিবহনকে ৪ হাজার টাকা, নীলাচল পরিবহনের দুইটি বাসকে ৩ হাজার ৫শ’ টাকা সহ মোট এগারটি পরিবহনকে ৩৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।


এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

সিলেটে বিএনপির সমাবেশ যথা সময়ে হবে : ডা. জাহিদ

ক্লাবগুলো কলঙ্কিত করলো যারা

আচমকা দৃশ্যপট বদলে গেল

প্রধানমন্ত্রী বলে গেছেন অভিযান অব্যাহত রাখতে

মোল্লা আবু কাওছার বিদেশে

ব্যাংক হিসাব জব্দ শামীমের অ্যাকাউন্টে ৩০০ কোটি টাকা

ক্যাসিনোপাড়ার শতাধিক বিদেশি লাপাত্তা

প্রতি রাতে উড়তো কোটি কোটি টাকা

ঢাবিতে ছাত্রদলের ওপর ছাত্রলীগের হামলা

নারায়ণগঞ্জে নব্য জেএমবি’র দুই সদস্যসহ গ্রেপ্তার ৩

নেতাকর্মীদের আগ্রহ নেই

যুবলীগের দপ্তর সম্পাদক নজরদারিতে

আফগানিস্তানে জঙ্গি ঘাঁটিতে সেনা অভিযানে বাংলাদেশি গ্রেপ্তার

ফু ওয়াং ক্লাবে পুলিশের অভিযান

ভারতে দেহব্যবসায় বাধ্য করানো ৮ বাংলাদেশি যুবতীকে উদ্ধার

গোল্ডেন ড্রাগন বারে চলছে পুলিশের অভিযান