আহারে!

ষোলো আনা

ইমরান আলী | ২ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার | সর্বশেষ আপডেট: ৯:৪৫
প্রতীকী ছবি
এক বৃদ্ধ বিক্রেতা ফুটপাথে ঝুড়িতে ৫/৬টা পেঁপে নিয়ে বসে আছেন। শরীরে জীর্ণ পোশাক। বয়সের ভারে কাবু।

পচা পেঁপে বলায় উত্তরে বলেন, পচা না বাপ। ভেতরে ভাল। খেয়ে দেখেন। পচা হলে দাম দিয়েন না বাপজান।

দু’টা পেঁপে মাত্র দশ-দশ বিশ টাকায় নিলাম। খেয়াল করলাম লোকটার এক চোখ নষ্ট। চোখটা মিশেই গেছে একদম। বাঁ পাশের চোখটা দিয়ে কোনোরকম আবছা দেখেন।

বিশ টাকার একটা নোট হলেও বেশ সময় নিয়ে টাকাটা দেখে নিলেন। ঠিক তখনই বৃষ্টি এলো। সবার তাড়াহুড়ো লেগে যায়। তবে তিনি সেখানেই আঁটোসাঁটো হয়ে বসে রইলেন। ঝড়, বৃষ্টি, রোদ তার গা সওয়া হয়ে গেছে।

ঢাকার নিত্যদিনের সঙ্গী যানজট পাড়ি দিয়ে বাসায় ফিরলাম। ফিরে টেলিভিশনের সামনে বসলাম। খবর শুনছি। এক কর্মকর্তার ঘুষের খবর।

আহারে! যে কর্তার সুঠাম দেহ। আছে ক্ষমতা। অনেক টাকা বেতন পান। তারপরেও ঘুষ দিয়ে গড়েছেন অবৈধ সম্পদের পাহাড়। ভালো দু’টা চোখ আর যোগ্যতা থাকলেও তিনি অন্ধ।

আর ওদিকে আল্লাহ্‌র দান দু’টা চোখের একটায় আলো নেই। আরেকটা প্রায় আবছা। তারপরও তিনি বৃদ্ধ বয়সে ফুটপাথে বসে হালাল উপার্জন করছেন। এমনকি করছেন না ভিক্ষাবৃত্তিও। অন্যায়তো দূরের কথা।




এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

প্রত্যাবাসন চেষ্টা ব্যর্থতার জন্য বাংলাদেশকেই দুষছে মিয়ানমার

মোজাফফর আহমদ আর নেই

বিরোধী নেতার পদ নিয়ে জাপায় চাপান-উতোর

পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনায় বসতে ভারতকে ফ্রান্সের চাপ

তবুও ভালো নেই পুঁজিবাজার

ছাত্রদলের কাউন্সিল বেড়েছে তৃণমূলের কদর

রাঙ্গামাটিতে সেনা বাহিনীর অভিযানে শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত

রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের গুলিতে যুবলীগ নেতা নিহত, বিক্ষোভ, ভাঙচুর

ডেঙ্গু নিয়ে এপর্যন্ত হাসপাতালে ভর্তি ৬১,০০০

একই পরিবারের সবাই ডেঙ্গু রোগী

ভারত-পাকিস্তানকে সহায়তা করতে প্রস্তুত ট্রাম্প

মর্গ ব্যবস্থাপনা নিয়ে প্রশ্ন

খেলাপি ঋণের নতুন রেকর্ড

হঠাৎ বেড়েছে পিয়াজের দাম, স্বস্তি নেই সবজিতেও

সিলেটে কিং রতনের ‘ইয়াবাকন্যা’ নূপুর গ্রেপ্তার

বিএসএফের গুলিতে সাতক্ষীরা সীমান্তে ৫ বাংলাদেশি আহত