আমিরের বিরুদ্ধে তনুশ্রীর ক্ষোভ

বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক | ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার
আমির খানের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করলেন তনুশ্রী দত্ত। আর এ ক্ষোভের কারণ যৌন হেনস্তায় অভিযুক্ত সুভাষ কাপুরের সঙ্গে আমিরের কাজ করা নিয়ে। আমির জানান, যৌন হেনস্তায় অভিযুক্ত সুভাষ কাপুরের সঙ্গে তিনি যে কাজ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন, তা পুনর্বিবেচনা করে দেখবেন। আমিরের ঘোষণার পরই অভিনেতার বিরুদ্ধে মুখ খুললেন তনুশ্রী। মিড-ডেকে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, নিজের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসে আমির এই ‘মিটু’ মুভমেন্টটাকেই হালকা করে দিলেন। আমির যদি জীবিকা, আয় নিয়ে স্বচ্ছভাবে ভাবতেন তাহলে সুভাষ কাপুর কর্তৃক হেনস্তার শিকার মেয়েটাকে কাজের সুযোগ দিতেন। তনুশ্রী প্রশ্ন তুলে বলেন, ওই মেয়েটাকেও বিভিন্ন মানসিক ও সামাজিক চাপের মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে। তাহলে কি সমবেদনা শুধু পুরুষদেরই প্রাপ্য? কোনো একজন মহিলা যদি হেনস্তার শিকার হন, ট্রমার মধ্যে দিয়ে দিন কাটান, তখনও বলিউডের একজনও কি তার চিন্তায় রাতে না ঘুমিয়ে কাটান? যদি আমির সুভাষ কাপুরকে কাজে নেয়ার কথা ভাবতে পারেন, তাহলে তিনি ওই মহিলাকে কেন কাজ দেয়ার কথা ভাবলেন না? প্রসঙ্গত, গত বছরই ‘মিটু’ মুভমেন্টকে সমর্থন করে আমির যখন মগুল থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তখন তনুশ্রী দত্তই তার প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয়েছিলেন। তবে সমপ্রতি হিন্দুস্থান টাইমসকে দেয়া সাক্ষাৎকারে আমির জানান, যৌন হেনস্তায় অভিযুক্তদের সঙ্গে কাজ না করার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন, তা পুনর্বিবেচনা করে দেখার কথা ভেবেছেন তিনি এবং তার স্ত্রী কিরণ রাও।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

আপনার মতামত দিন

নগ্ন স্তনের কারণে মালয়েশিয়ায় নিষিদ্ধ হলো জেনিফার লোপেজের ছবি

জলবায়ু পরিবর্তনের বিরুদ্ধে বিশ্বজুড়ে বিক্ষোভ

সৌদি আরবে সেনা পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

‘আমার ভেতর অন্যরকম এক পরিবর্তন এসেছে’

আবার জ্বলে উঠেছে সেই তাহরির স্কয়ার

বাংলাদেশের মানবাধিকার পরিস্থিতির কড়া সমালোচনা জাতিসংঘে

যুক্তরাষ্ট্র নিয়ে বিভ্রমের অবসান সৌদি আরবের?

গোপালগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় পুলিশ কর্মকর্তাসহ নিহত ৪

বিধবাকে গণধর্ষণ, এএসআই প্রত্যাহার

মাফিয়া ডন শামীম গ্রেপ্তার

বদলে গেল ক্লাবপাড়ার দৃশ্যপট, তবে

তদন্তের জালে ছাত্রলীগের শতাধিক নেতা

কলাবাগান ক্রীড়াচক্রে র‌্যাবের অভিযান সভাপতি গ্রেপ্তার

পিয়াজের দাম কমছেই না

ছাত্র রাজনীতির ইতিবাচক পরিবর্তন দেখছি না

দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল ১০ জনের