যাত্রী নিয়ে বরের বাড়িতে কনে

অনলাইন

আকতারুজ্জামান, মেহেরপুর প্রতিনিধি | ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, রোববার, ১১:৫৮ | সর্বশেষ আপডেট: ৯:৪৬
বিয়ে করতে সাধারণত যাত্রী নিয়ে কনের বাড়িতে যান বর। এই প্রথাও ভেঙে দিলেন মেহেরপুরের ছেলে আর চুয়াডাঙ্গার এক তরুণী। বর পক্ষের লোকজন অনাড়ম্বর পরিবেশে ঢাক-ঢোল পিটিয়ে বর্ণাঢ্য আয়োজন করেছেন কনে যাত্রীর জন্য । কনে যাত্রীকে বরণ করতে বরণ ডালা সাজিয়ে অপেক্ষমান বরপক্ষ। গাড়িতে করে লাল টুকটুকে বেনারশী আর বাহারি সাজে বধূ সেজে বরের বাড়িতে গিয়ে বিয়ে করলেন তরুণী।
এই ব্যতিক্রমি ও আলোচিত বিয়ের ঘটনাটি ঘটে  শনিবার মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার চৌগাছা গ্রামে।  সেখানে কনে পক্ষের শতাধিক যাত্রীর সঙ্গে বরপক্ষের তিন শতাধিক আমন্ত্রিত অতিথি ছিলো। এই বিয়ে দেখতে হাজির হয়েছিলেন সহস্রাধিক উৎসুক নারী-পুরুষ।


পাত্রী চুয়াডাঙ্গার  কামারুজ্জামানের মেয়ে  খাদিজা আক্তার খুশি। তিনি বাড়ির ছোট মেয়ে। কুষ্টিয়া সরকারি কলেজে অর্থনীতি বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী।
সাজানো গাড়ি নিয়ে প্রথা ভেঙে অভিভাবকদের সম্মতিতে বরের বাড়িতে বিয়ে করতে  যান খুশি।   একই গাড়িতে ছিলেন কনের বান্ধবী ও বোনেরা। আর কনে বসে চিলেন গাড়ির সামনে। গাড়িতে বাজানো হচ্ছিলো বিয়ের গান।    শুধু বর-কনে নয়; বিয়ের এমন সিদ্ধান্তে সম্মতি ছিল উভয় পরিবারের। এ বিষয়ে কনে খুশি বলেন, সনাতন পদ্ধতির বিলুপ্তি আর নারীদের সমতা প্রতিষ্ঠায় আমার ইচ্ছাতেই পরিবারের এমন সিদ্ধান্ত। যৌতুক প্রথা বিলুপ্ত আর নারী অধিকার প্রতিষ্ঠিত করতেই এমন ব্যতিক্রম সিন্ধান্ত। তাছাড়া ইচ্ছে ছিলো বিয়ে করতে হলে ভিন্নধর্মী বিয়ে করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবেন তিনি।



যৌতুকহীন এই বিয়ে প্রসঙ্গ কনের পিতা কামরুজ্জামান বলেন, ছেলে-মেয়েদের সমঅধিকার বাস্তবায়নেই আমরা অভিভাবকেরা এমন সিদ্ধান্ত নিই। সিদ্ধান্ত অনুসারেই মেয়েকে ছেলের বাড়িতে এনে বিয়ের আয়োজন করি।

এই বিয়ের পাত্র চৌগাছা গ্রামের আবদুল মাবুদের ছেলে তরিকুল ইসলাম জয়। পাত্রের বাবা আবদুল মাবুদও অভিন্নসুরে জানান, ব্যতিক্রম সবসমই চমকের। প্রথা ভাঙ্গতেই এমন আয়োজন। আগামীতে যাতে মেয়েরাও ছেলেদের বাড়ি এসে বিয়ে করতে উৎসাহী হয় তার জন্য এমন বিয়ের একটি ইতিহাস গড়তে চেয়েছিলাম। সফল হতে পেরে ভালো লাগছে।

এই বিয়েতে উপস্থিত ছিলেন মেহেরপুর-২ গাংনী আসনের সাবেক এমপি মকবুল হোসেন , কথাসাহিত্যিক রফিকুর রশীদ, বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টির পলিট ব্যুরোর সদস্য নুর আহমেদ বকুল প্রমুখ।

এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

মিজানুররহমানটুটুল

২০১৯-০৯-২২ ২৩:০২:০৭

এইসব পরিবার বর্গের প্রতি আল্লাহ লানাত। যারা আল্লাহ ও রাসুলুল্লাহ(সাঃ) এর প্রদর্শিত আইন ভঙ্গ করে এবং আল্লাহর জমিনে নিজের খেয়াল-খুশি মতো জীবন যাপন করে সমাজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে এবং অন্যকে উৎসাহিত করে। আল্লাহ আমাদের সবাইকে এই সমস্ত জাহিলিয়াত থেকে দূরে রাখো।

সাঈদ আহমাদ

২০১৯-০৯-২২ ২২:২৬:৫৪

প্রথা ভাংগতেই হবে যেহেতু তাহলে বাকিগুলিও করে দেখান। যেমন মোহরানা,ওলীমা,বিয়ের খরচ,কাজীর খরচ,বরের জন্য সোনা গয়নাসহ যাবতীয় শপিং ,বরের আজীবনের খোরপোষের দায়িত্ব নেয়া,বাড়ি বানানো,বরকে অন্তঃসত্ত্বা বানানো,বর কতৃক সন্তান প্রসব করা,দুধপান করানো,লালন পালন করা,রান্না করা,ঘরের সমস্ত কাজ করা,কনে উপার্জন করা,হাট বাজার করা,সংসার চালানো,ফ্যামিলির নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা ইত্যাদি.............................................। এক কথায় বরের কাজ কনে করা আর কনের কাজ বরে করা, তাহলেই প্রথা ভাংগাটা পূর্ণতা পাবে।

Mohammad Islam

২০১৯-০৯-২২ ২১:১১:১৩

What a great example! Hope More and more weeding break traditional way. Many comments here reminds me that lot of guys are scared of equal right for men and women. Suck it up.

Faruki

২০১৯-০৯-২২ ১০:৫১:০১

It is called Hijra. Weeding

Faruki

২০১৯-০৯-২২ ১০:৪৯:৫০

Weeding for Hijra .

Noormd.

২০১৯-০৯-২২ ১০:৪৮:৪৭

লজ্জা নারীর ভুষন বলা হতো, তা এখন উধাও হচ্ছে ভুবন থেকে। লজ্জা নাই যার দুনিয়া টাই তার,তাই এখন চলছে ভেবে, আরো কতো কি দেখতে হবে। মাসউদুল গনি, বাহাউদ্দিন বাবলু,আবুছাইদ হুমায়ূন খান, মোহাম্মদ কামাল হোসেন, আপনাদের অনেক অনেক ধন্যবাদ লেখার জন্য।

আব্দুল্লাহ

২০১৯-০৯-২২ ২১:৫০:৪৮

আমার মনে হয় খাদিজা আক্তার খুশি তাসলিমা নাসরীনের মুরিদ!

Selina

২০১৯-০৯-২২ ০৮:৩০:৩০

We oppose this type of activity.

রিসালা

২০১৯-০৯-২২ ০৮:২৮:৪০

ব্যাটার কপালে খারাবি আছে।

মোঃ হুমায়ূন কবির

২০১৯-০৯-২২ ০৮:০১:০০

ইসলামে নারীকে দেয়া হয়েছে তিন গুণ মর্যাদা, আর সন্মান সহ অধিকার। যারা এটার প্রতি খুশী না তাদের আবার বিয়ের দরকার কি???????

শামীম আহম্মেদ

২০১৯-০৯-২২ ০৭:৪৭:১১

এই বিয়ে যদি জায়েজ না হয়, তবে আরব দেশের সকল বিয়েই নাজায়েজ হয়ে যাবে। কারন উনারা নাচনা, গানা, এমন কি উলুধ্বনি পর্যন্ত দেয়।

Alamgir Hossen

২০১৯-০৯-২২ ২০:২৭:০৫

আতিক সাহেব কি মুফতী ? না জেনে মাসলাহ /ফতোয়া দেয়া বড় পাপের কাজ।

Atik

২০১৯-০৯-২২ ১৯:৩৯:৫৪

গান বাদ্য করলে যেমন সালাত আদায় হয় না, অনুরুপ বিয়েতেও গানবাদ্য নাচানাচি, বেপর্দা হলে বিয়ে হয় না। কারন বিয়েও একটা ইবাদত, এখানে সুন্নাতের কিছু বিষয় আছে, বিয়ের কিছ নিয়ম ও শর্ত আছে, এখানে বিয়ের মূল আনুষ্টানিকতার মধ্যে এর ব্যতিক্রম হলে শরিয়তের বিয়ে হয় না।

Akbar Ali

২০১৯-০৯-২২ ১৬:৩৮:২৪

আমি এই বিয়ে দেখে মুগ্ধ। নূতন করে আবার আমার বিয়েতে বসতে ইচ্ছে হচ্ছে। আমার স্ত্রীকে বুঝাই। বেচারা সাঁই দিলেই না পরে সব কিছু।

ইমামুল হক জাহাঙ্গীর

২০১৯-০৯-২২ ০২:৩১:৩৩

আমার মতে ইসলাম ধর্ম মোতাবেক বিয়ে শুদ্ধ হয়নি।

Uddin

২০১৯-০৯-২২ ১৪:৪৯:০০

Congratulation!! Wish good luck to you both.

মাসউদুল গনি

২০১৯-০৯-২২ ১৪:৪৩:২৯

এই দম্পতির জন্য দোয়া করি, আরও দোয়া করি যেন শিঘ্রই ছেলেটি মা এবং মেয়েটি বাবা হয়!!!!!!!!!!!!!! উল্টা বলে কথা!!!!!!

বাহাউদ্দিন বাবলু

২০১৯-০৯-২২ ০১:১৯:৫৭

এই নিয়মে যদি বিয়ে হয় তাহলে কনের বাড়িতে বরের থাকার কথা। যেমন উপজাতিদের ক্ষেত্রে হয়।

আবু সাইদ হুমায়ুন খান

২০১৯-০৯-২২ ১৩:২৮:৫৩

এখানে ২ টা বিষয় ১) যৌতুক দেওয়া ইসলামে কখনোও ছিলো এখনও নাই । ঈমান মমিন ব্যাক্তি বা তার পরিবার কোনদিন যৌতুক দেওয়া বা নেওয়ার পক্ষে ছিলেন না। বরং কন্যাকে মহরানা দিয়ে বিয়ে করা ইসলামের নিয়ম এবং ঈমান মমিন ব্যাক্তি বা তার পরিবার আমাদের দেশে তাহা করেন । ২)কনে খুশি বলেন, সনাতন পদ্ধতির বিলুপ্তি আর নারীদের সমতা প্রতিষ্ঠায় আমার ইচ্ছাতেই পরিবারের এমন সিদ্ধান্ত ।" প্রশ্ন হইল তিনি কোন সনাতন পদ্ধতির কোন ধর্মের সনাতন পদ্ধতির বিলুপ্তি আর নারীদের সমতা প্রতিষ্ঠায় করতে চাইছে । ইসলামে বিয়ে একটি পবিত্র বিষয় , এই মেয়ে তো সেটাকে কলুষিত করছে ।

মোঃ কামাল হোমসন

২০১৯-০৯-২২ ১৩:১৮:৪২

বিয়ৈটা কি কোন হুজুর পড়িয়েছেন, নাকি কোন কলেজের পিন্সিপাল তা লেখেন নাই কেন? আর কত কিছু দেখাবে আল্লাহ্ জানিনা ভাগ্যে কি আছে।

Alamgir Siddque

২০১৯-০৯-২২ ০০:০১:৫৭

Thanks for the bridegroom !!

Sumon Hossain

২০১৯-০৯-২১ ২৩:১১:৩৬

খুব সুন্দর আয়োজন

আপনার মতামত দিন

লক্ষ্মীপুরে দু’দল ডাকাতের ‘গোলাগুলি’তে একজন নিহত

যেভাবে ভারতের ওপর নির্ভরশীলতার ইতি টানতে চায় নেপাল

শায়েস্তাগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত নিহত

মুখোমুখি তুরস্ক ও সিরিয়ার সেনাবাহিনী?

দলবেঁধে বিদেশ ভ্রমণ

টাকার মান কমানোর উদ্যোগ যা ভাবছেন বিশ্লেষকরা

ছাত্ররাজনীতি বন্ধ হওয়া উচিত

দুদক চেয়ারম্যানের পদত্যাগ করা উচিত

গণভবনে আবরারের বাবা-মা, দ্রুত বিচারের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

চার বড় ভাইকে নিয়ে সিলেটে নানা জল্পনা

ড. ইউনূসের গ্রেপ্তারি পরোয়ানা স্থগিত

পরিবেশ রক্ষা করেই সুন্দরবন এলাকায় উন্নয়ন হচ্ছে- সালমান এফ রহমান

বাংলাদেশে মতপ্রকাশের স্বাধীনতার অপরাধকরণ নিয়ে উদ্বেগ

শিশুর ওপর এ কেমন বর্বরতা!

ছাত্রলীগ থেকে অমিত সাহা বহিষ্কার

আবরারের ছবিতে ভিজেছে হাজারো চোখ