বাবার কোলেই ঘুমন্ত তুহিনকে হত্যা করে চাচা নাসির

সুনামগঞ্জ ও দিরাই প্রতিনিধি

অনলাইন ১৫ অক্টোবর ২০১৯, মঙ্গলবার, ৮:১৮ | সর্বশেষ আপডেট: ৮:৫৫

সুনামগঞ্জে দিরাই উপজেলার কেজাউরা গ্রামে শিশু তুহিন খুনের নৃশংস ঘটনায় তার বাবা, তিন চাচা ও চাচতো ভাই জড়িত ছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এক সংবাদ সম্মেলনে আলোচিত এই খুনের ঘটনা সম্পর্কে এমন চাঞ্চল্যকর তথ্য দিয়েছে সুনামগঞ্জের পুলিশ মো. মিজানুর রহমান। তিনি জানান, প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে ঠান্ডা মাথায় বাবা-চাচারা মিলে খুন করে ৫ বছর বয়সী শিশু তুহিনকে। ঘুমন্ত শিশুটিকে বাবা আব্দুল বাছির কোলে করে বাড়ির বাইরে নিয়ে যান। বাবার কোলেই ঘুমন্ত অবস্থায় শিশু তুহিনকে ছুরি দিয়ে গলা কেটে হত্যা করে চাচা নাসির উদ্দিন।

তিনি আরো জানান, এ সময় নাছিরকে সহযোগিতা করেছিল শিশু তুহিনের চাচা মছব্বির, জমসের ও চাচাতো ভাই শাহরিয়ার। পরে প্রতিপক্ষের নাম খোদাই করা দুটি ছুরি ঢুকিয়ে দেয় শিশু তুহিনের পেটে। এর আগে সুনামগঞ্জ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে  ১৬৪ ধারা জবানবন্দিতে খুনের ঘটনায় সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করেছে শিশু তুহিনের চাচা নাসির উদ্দিন ও চাচতো ভাই শাহরিয়ার।
ঘটনায় জড়িত বাবা আব্দুল বাছির, চাচা মছব্বির আলী ও জমসের আলীকে তিন দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।



পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

জাফর আহমেদ

২০১৯-১০-১৫ ০৮:৩৭:৪৪

জানিনা এই দেশের আইন আদালত তাদের কি সাজা হবে। আদৌও হবে কি না। তবে আল্লাহ কাছে আবেদন করি । তিনি যেনো তাদের কঠোর শাস্তি দেন। আর তাদের শাস্তি যেন দুনিয়া বাসি দেখে।

শহীদ

২০১৯-১০-১৫ ২১:৩৭:৪১

খুনি নিশ্চিত হলে অন্ধকার প্রকাষ্ঠে ফাঁসি না দিয়ে জনগণের সম্মুখে ব্রাসফায়ার করে মেরে ফেলা হোক হন্তারকদের। দ্রুত রায় ঘোষণা ও কার্যকর না করায় অপরাধ প্রবণতা বাড়ছে।

Chan miya

২০১৯-১০-১৫ ০৭:৫০:০১

মানুষ নামে কলঙ্গক

রাহমান

২০১৯-১০-১৫ ০৭:৩৮:৪৪

নাউজুবিল্লাহ এই পশু গুলোকে হত্যা করা হোক

কাজল

২০১৯-১০-১৫ ০৭:৩৬:৪০

মানুষ নামের কলংক। বাবা ও চাচা যদি ঘাতক হয়, শিশু কার কাছে নিরাপদ? সাধারন কসাই যারা ওরা ও এ কাজে মনে হয় শিউরে উটবে। হাত কাঁপবে, আসলে ওরা সিরিয়াল কিলার। আমার মতে ওরা খুনী, নৃসংশ্ খুন করা ওদের অভ্যাস আছে। ওদের গালী দেওয়ার ভাষা ও আমার নেই।

M.A. Awal

২০১৯-১০-১৫ ০৭:৩৬:০৮

Humanity is going to be lost rapidly. They killed the innocent baby and killed themselves as well.

আপনার মতামত দিন

অনলাইন -এর সর্বাধিক পঠিত