দ্বিপক্ষীয় সফরে ইতালি যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

কূটনৈতিক রিপোর্টার

শেষের পাতা ২১ জানুয়ারি ২০২০, মঙ্গলবার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:১৯

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী ৪ঠা ফেব্রুয়ারি রোম সফরে যাচ্ছেন। ইতালির প্রধানমন্ত্রী প্রফেসর জুসেপ্পে কন্তের আমন্ত্রণে দ্বিপক্ষীয় এ সফরে যাচ্ছেন তিনি। সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশের সরকার প্রধানের ইউরোপে বহু সফর হলেও ইউরোপীয় ইউনিয়ন জোটের প্রভাবশালী সদস্য ইতালিতে এটাই প্রধানমন্ত্রীর 
প্রথম পূর্ণ দ্বিপক্ষীয় সফর। ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে ইফাদের আয়োজন এবং ২০১৪ সালে বহুপক্ষীয় একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রোম সফর করেছিলেন। ইতালিতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান শিকদার মানবজমিনকে জানিয়েছেন- ৫ই ফেব্রুয়ারি দুই প্রধানমন্ত্রীর আনুষ্ঠানিক শীর্ষ বৈঠক হবে। সেখানে দুই দেশের স্বার্থ-সংশ্লিষ্ট বিষয়াদি নিয়ে আলোচনা হবে।

ঢাকার তরফে ইতালীর বিনিয়োগকারীর বাংলাদেশে বিনিয়োগের আমন্ত্রণ জানানো ছাড়াও বাংলাদেশ থেকে দক্ষ জনশক্তি নেয়ার অনুরোধ থাকবে। তাছাড়া ইউরোপীয় ইউনিয়নের বিশাল বাজারে বাংলাদেশি পণ্যের প্রবেশাধিকারে বিশেষ সুবিধাপ্রাপ্তি নিশ্চিতের বিষয়টিও সফরের আলোচনায় থাকবে।
প্রধানমন্ত্রী ইতালিতে নব নির্মিত  চ্যান্সারি কমপ্লেক্সের অনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন। প্রবাসী বাংলাদেশিদের একটি অনুষ্ঠানেও তার বক্তৃতা করার কথা রয়েছে। এদিকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বশীল সূত্র জানিয়েছে, সরকার প্রধানের আসন্ন ইতালী সফরে একাধিক চুক্তি সইয়ের আলোচনা চলছে। তবে চুক্তিগুলো শেষ পর্যন্ত সই হচ্ছে কি-না তা এখনও স্পষ্ট নয়। উল্লেখ্য, ২০১৮ সালে সর্বশেষ ইতালী সফরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইন্টারন্যাশনাল ফান্ড ফর এগ্রিকালচারাল ডেভেলপমেন্টের (ইফাদ) পরিচালনা পর্ষদের বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দেয়ার পাশাপাশি পোপ ফ্রান্সিসের আমন্ত্রণে হলি সি (ভ্যাটিক্যান সিটি) সফর করেছিলেন। সে সময় পোপ ফ্রান্সিস ছাড়াও সিটির কার্ডিনালদের সঙ্গে তার বৈঠক হয়েছিল।

পাঠকের মতামত

**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।

Amir

২০২০-০১-২১ ১৩:১১:১৩

ইতালিতে বেশ কয়েকটি গাড়ি তৈরির কোম্পানি আছে ,সমাজের ধনী গরিব সবার জন্য এরা গাড়ি তৈরি করে (বাংলাদেশী সাত লাখ টাকায় ব্রান্ড নিউ কার কেনা যায়) ঐ কোম্পানি বাংলাদেশে আনা যায় কিনা এটার চেষ্ট করা যেতে পারে; এছাড়া মেটাল মেকানিকের জন্য ইতালি বিখ্যাত, ইউরোপ তথা বিশ্বের অনেক দেশ ইতালি থেকে তাদের বিভিন্ন যন্ত্রাংশ তৈরি করিয়ে নেয়, মেটাল সেক্টর থেকে উদিয়মান বাংলাদেশ সহযোগিতা চাইতে পারে! জাহাজ শিল্প এবং নৌ ট্যুরিজম এর জন্য ইতালি নামকরা, এই সেক্টরেও বাংলাদেশ বিনিয়োগ আহ্বান করতে পারে।

আপনার মতামত দিন



শেষের পাতা অন্যান্য খবর

নাঈমে শেষ বিকালে স্বস্তি

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০

কলকাতার ডায়েরি

কলকাতায় চলবে লন্ডনের মতো ছাদ খোলা দোতলা বাস

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০



শেষের পাতা সর্বাধিক পঠিত